পর্যটনে নারী উদ্যোক্তা শাম্মী

0
844

ভুমিকাঃ ‘দি ট্যুরিজম ভয়েস’ পত্রিকা সব সময় পর্যটন শিল্পের উন্নয়নে এবং শিল্পের সাথে যুক্ত কিছু ব্যতিক্রমী মানুষকে তুলে ধরার প্রানান্তর চেষ্টা করে, এবং সেই মানুষ গুলোর পর্যটন উদ্যোক্তা হয়ে ওঠার লড়াই কে সম্মান জানিয়ে তাদের পাশে থাকার চেষ্টা করে। আজ তুলে ধরবো তেমনি একজন রন্ধন শিল্পী, ফুড ক্যাটারিং ব্যবসায়ী, পর্যটন উদ্যোক্তা শাম্মী শারমিনকে।

শাম্মীর জন্ম হয়েছে পৈতৃক নিবাস অতীশদিপংকর, জগদীস চন্দ্র বসু ও ব্রোজেনদাস এর মত মনিষীদের জন্মস্থান মুন্সিগঞ্জ জেলার বিক্রমপুরে ১৯৭৮ সালে । ছোট থেকে বড় হয়েছেন Bangladesh Ordinance Factory (B.O.F) আবাসিক ভবনে । বাবা সেখানে প্রথম শ্রেনীর কর্মকর্তা হিসাবে কর্মরত ছিলেন । বর্তমানে বাবা এখন আর বেঁচে নেই , মা আছেন। ৫ ভাই ৪ বোনের মধ্যে শাম্মী সবার ছোট।

শাম্মী গাজিপুর ক্যান্টোমেন্ট বোর্ড হাই স্কুল থেকে ১৯৯২ সালে এসএসসি করেন। এরপর লালমাটিয়া মহিলা মহাবিদ্যালয় থেকে ১৯৯৪ সাথে এইচএসসি পাস করেন। বিএ ভর্তি হলেও পড়াশোনা বন্ধ করেন হয় কারন পরিবার থেকে বিয়ের আয়োজন করার কারনে। বিয়ের কিছুদিনের মধ্যেই কোল আলোকিত করে প্রথম সন্তান জন্মগ্রহন করেন। বর্তমানে ৩ সন্তানের জননী তিনি। শাম্মী কখনো কোনো জব করেন নি। এর মধ্যে মানুষের জীবন বৈচিত্র্য নিয়ে কাজের নেশা চেপে বসে, মডেলিং জিবনে পা দেন। ১৯৯৬ সাল থেকে ১৯৯৮ সাল পর্যন্ত বিভিন্ন টিভিতে মডেলিং করেছেন। ফ্যাশান শো, র‍্যম্প শো, স্ট্রেস প্রোগ্রাম ছিল নিত্যদিনের শখ। কিছুদিন ফ্যাশান কোরীয় গ্রাফার হিসাবেও কাজ করেছেন।একটা মানুষ হিসেবে নিজেকে গড়ে তোলার জন্য কিছু একটা করাটা খুব জরুরি মনে করতেন। তারপর পারিবারিক কারনে মডেলিং ও কোরীয়গ্রাফী ছেড়েদেন।

২০১৭ সালে হজ্জ পালন করে আসার পর, বাসায় বসে বসে চিন্তা করতেন, কিছু একটা করা দরকার । তখনও তিনি জানতেন না যে কোথায় সেফ কোর্স বা রান্নার প্রশিক্ষন করতে হবে । খুব হতাশ হয়ে পড়েন নিজেকে নিয়ে । বাইরে গিয়ে চাকরি করা শাম্মীর পক্ষে সম্ভব না বাচ্চাদের রেখে । শাম্মী রান্না নিয়ে কিছু করা বা হোমমেড ফুড ক্যাটারিং এর স্বপ্ন দেখা শুরু করেন। কারণ এই একটা কাজই আছে, যেটা নিয়ে শাম্মী বাসায় থেকে কাজটা করতে পারবেন। কিন্তু শাম্মীর কোন প্রফেশনাল কোর্স করা নাই । শেষে ভাগ্নির মাধ্যমে জানতে পারলেন এক জায়গায় সেফ কোর্স করানো হচ্ছে, তিনি ইচ্ছা করলে এই কোর্স করে কাজ করতে পারেন। এবং ২০১৮ সালে “এসিই হসপিটালিটি ম্যানেজমেন্ট” থেকে international professional Chef course করেন। একই বছর Baking & pastry Chef কোর্স করেন।

শাম্মী ২০১৮ সালে “শাম্মী’স কিচেন” নামে অনলাইন বেজড হোমমেড ফুড ক্যাটারিং এর ব্যবসা শুরু করেন। বর্তমানে বেশ ভাল বিজনেস হচ্ছে। এছাড়া বিভিন্ন ক্লাস পার্টিতে, জন্মদিনের পার্টিতে, গেটটুগেদার পার্টিতে ইভেন্ট গুলোতে নিয়মিত কাজ করে যাচ্ছেন । “শাম্মী’স কিচেন” থেকে নিয়মিত পরিবেশন হওয়া খাবার গুলোর মধ্যে কেক, মোরগ পোলাও, চিকেন বিরিয়ানী, বিফ বিরিয়ানী, কাবাব, ফ্রজেন ফুড, মিষ্টি, লাচ্চা সেমাই, পিজা সহ আরো বেশ কিছু রুচিশীল খাবার। ঈদ উপলক্ষে লাচ্চা সেমাই অনলাইনে বেশ ভাল সেল করেন । অতি সম্প্রতি বিক্রমপুরে পৈতৃক বাড়িতে স্মল লজ হাউজ তৈরি করছেন।

উপসংহার; ‘দি ট্যুরিজম ভয়েস’ শাম্মী শারমিন এর উত্তরোত্তর মঙ্গল কামনা করে এবং ভবিষ্যতে শাম্মীর যে কোন কাজের পাশে থাকার প্রানান্তর চেষ্টা করে তার সোনালি স্বপ্নকে দেশে বিদেশে ছড়িয়ে দিতে সর্বদা সহযোগিতা করার আশ্বাস দিচ্ছে। শাম্মীর এই এগিয়ে চলার ও সাফল্যের গল্প অনুপ্রেরণা হয়ে পুষ্পিত পল্লবের মত ছড়িয়ে পড়ুক সহস্র নারীর মাঝে।